১৭৭ দিন পর গড়াল মেট্রোর চাকা, ১ ঘন্টায় ১,০০০ ই-পাস বুকিং

0

Last Updated on September 14, 2020 6:11 PM by Khabar365Din

৩৬৫ দিন। দীর্ঘ প্রতীক্ষার অবসান। ১৭৭ দিন পর অবশেষে গড়াল মেট্রোর চাকা। সোমবার সকাল থেকে কবি সুভাষ-দমদম-নোয়াপাড়া এবং ইস্ট-ওয়েস্ট, এই দুই রুটেই পরিষেবা শুরু করে কলকাতা মেট্রো রেলওয়ে। গত রবিবার নিট পরীক্ষার্থীদের সুবিধার্থে সকাল ১১টা থেকে সন্ধ্যা ৭টা পর্যন্ত পরিষেবা দিয়ে প্রাথমিক ট্রায়াল সেরে ফেলে মেট্রো। সোমবার সকাল ৮টা থেকে সন্ধ্যা ৭টা পর্যন্ত ১০ মিনিট অন্তর মেট্রো সাধারণ যাত্রীদের জন্য পরিষেবা শুরু করে দেয়। কাতারে কাতারে নিত্য যাত্রীকে এদিন স্মার্ট কার্ড, ই-পাস নিয়ে মেট্রো সফর করতে দেখা যায়। কোভিড আবহে সমস্ত বিধি মেনে প্রথমদিনের পরিষেবা দুপুর পর্যন্ত সুষ্ঠুভাবে চলেছে বলে জানাচ্ছে মেট্রো ভবন।
কলকাতা মেট্রো রেলওয়ের এক আধিকারিক জানাচ্ছেন, প্রথমদিন সামাজিক দূরত্ব বজায় রেখে পরিষেবা দিতে কিছুটা বেগ পেতে হয়েছে। নব্য স্বাভাবিক জীবনের মেট্রো পরিষেবা কেমন হওয়া উচিত, সে বিষয়ে যাত্রীদের মধ্যে প্রথমদিন কোনও ধারণা না-থাকায় কিছুটা সমস্যা দেখা দেয়। তবে পরিস্থিতি স্বাভাবিক হয়ে যায়। ‛পথদিশা’র ব্যবহার করে বহু যাত্রী এদিন নিউনর্মাল মেট্রো পরিষেবার অংশগ্রহণ করেন। সকাল ৯টা থেকে ১০তা পর্যন্ত ১,০০০ ই-পাস সংগ্রহ করেন যাত্রীরা।
সোমবার গোটাদিন কবি সুভাষ থেকে নোয়াপাড়া পর্যন্ত ৫৫টি আপ, ৫৫টি ডাউন মিলিয়ে মোট ১১০টি ট্রেন চালানো হবে। অন্যদিকে, ইস্ট-ওয়েস্ট মেট্রোর ক্ষেত্রে দুই লাইনে ৩৬টা করে মোট ৭২টি ট্রেন চালানো হবে।
এদিন পরিষেবা শুরুর সঙ্গে সঙ্গে স্টেশনে স্টেশনে থার্মাল গান স্ক্রিনিং, স্যানিটাইজারের মাধ্যমে যাত্রীদের স্টেশনে প্রবেশ করানো হয়। সমস্তটা মিলিয়ে পরিষেবার প্রথমদিন দুপুর পর্যন্ত পরিষেবা একপ্রকার মসৃনভাবেই চলে।

- Advertisement -
Advertisement

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here