ওড়িশার মেয়ে অপ্সরা রানি
রামগোপাল ভার্মার ‘থ্রিলার’
স্টার কিড নয়, ৫০ নম্বর
নতুন নায়িকা

0

Last Updated on September 15, 2020 9:09 PM by Khabar365Din

১৯ বছরের অপ্সরা কোনওদিনও ভাবেন নি মুম্বইতে ছবি করবেন, তাও আবার রামগােপালের ব্যানারে। তার না আছে গডফাদার, না আছে স্টারকিডের তকমা। অথচ নেটফ্লিক্স থেকে অনলাইনে প্রায় সব প্ল্যাটফর্মে দাপিয়ে বেড়াচ্ছে‘থ্রিলার’ছবির এই নায়িকা। আজকার স্টারকিড নিয়ে বড় হইচই হচ্ছে। অনেকেই পক্ষে আবার কেউ বিপক্ষে। রামগােপাল এমন একজন পরিচালক, সিনেমায় আসাটা যাঁর কাছে ছিল প্যাশন আবার সিনেমাকে কর্পোরেট ইন্ড্রাস্টিতে পরিণত করাটা তার কাছে ছিল স্বপ্ন। গত ৩০ বছরে একটু একটু করে রামু সেই কাজটাই করে এসেছেন, আপসহীন, ব্যতিক্রমীভাবে।

কোনওদিনই স্টারকিডদের নিয়ে ছবি করবেন এই ভাবনাটা তিনি ভাবেন নি। জীবনের প্রথম ছবি শিবা (১৯৯০) থেকে শুরু করে শেষ ছবি থ্রিলার, সেই একই ফর্মুলায় চলেছেন তিনি। অনন্ত ১৪ জন আনকোরা অভিনেতা-অভিনেত্রীকে সুযােগ দিয়ে একটা প্যারালাল কর্পোরেট ফিল্ম ইন্সটিটিউট তৈরি করেছেন রামু। প্রতিবার নতুন মুখ , অখ্যাত অচেনা প্রতিভারা পেডিগ্রি ছাড়াই মুম্বই চলচ্চিত্রে জগতে তাঁর হাত ধরেই পা রেখে চলেছে। নার্গাজুন (শিবা) থেকে চক্রবর্তী, শেফালি (সত্য), উর্মিলা (রঙ্গীলা), প্রীতি জিন্টা (দিল সে), রেবতি (রাত), অন্তরা মালি (প্রেম কথা), জিয়া খান (নিঃশব্দ), তেলেগু থেকে তামিল হয়ে হিন্দি প্রায় ৫০ জন নতুন প্রতিভাকে রামগােপাল নিয়ে এসেছেন দর্শকদের সামনে। রামগােপালের এই প্রচেষ্টা ভারতীয় চলচ্চিত্রে দৃষ্টান্ত স্বরূপ।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here