Aryan Khan:
আরিয়ানকে ১৪ দিনের জেল হেফাজত, ভাজপা সুপরিকল্পিত ভাবে এক উজ্জ্বল তরুণের ক্যারিয়ার ধ্বংস করছে

0

Last Updated on October 8, 2021 11:58 PM by Khabar365Din

৩৬৫ দিন। সদাশিব রানা । মুম্বই। মুম্বই আদালতে খারিজ হয়ে গেল আরিয়ানের জামিনের আবেদন। তাঁকে কাটাতে হবে আর্থার রোড জেলেই৷ খারিজ হয়ে গিয়েছে আরবাজ মার্চেন্ট ও মুনমুন ধামেচার জামিনের আবেদনও৷ তিন জনকেই জামিনের জন্য নগর দায়রা আদালতে আবেদন করতে বলা হয়েছে৷ তবে আরিয়ানের আইনজীবিদের সূত্রে জানা গিয়েছে তারা আগামী কাল সকালেই মুম্বই হাইকোর্টে জামিনের আবেদন জমা দিতে পারেন।
ম্যাজিস্ট্রেট কোর্টে শুনানি চলাকালীন, আরিয়ান খান এর পক্ষে আইনজীবী সতীশ মানুষের দে অভিযোগ করেন আরিয়ানের কাছ থেকে কোনরকম মাদকদ্রব্য বাজেয়াপ্ত না হওয়া সত্ত্বেও তাকে জোর করে আটকে রাখছে এনসিবি। এর বিরোধিতায় কোন প্রমাণ দেখাতে না পারলেও নারকোটিক্স কন্ট্রোল ব্যুরো শাহরুখ-পুত্রকে জামিন দেওয়ার বিরোধিতা করে জানায়, আরিয়ান খান যথেষ্ট প্রভাবশালী। জামিনে ছাড়া পেলেই তথ্য-প্রমাণাদি নষ্ট করে দিতে পারে। পাশাপাশি এনসিবির আইনজীবী দাবি করেন ম্যাজিস্ট্রেট কোর্টে এনডিপিএস মামলার জামিন দেওয়ার ক্ষমতা নেই। তার প্রেক্ষিতেই আদালতের তরফে আরিয়ান খান, আরবাজ মার্চেন্ট ও মুনমুন ধামেচার জামিনের আবেদন নাকচ করে দেয়।

- Advertisement -


আদালতে শুনানি চলাকালীন আইনজীবী সতীশ মানশিন্ডে নারকোটিক্স কন্ট্রোল ব্যুরোর বিরোধিতা করে আরিয়ান খানের হয়ে কোর্টকে জানান, প্রভাবশালী পরিবারের ছেলে বলেই যে তথ্য-প্রমাণাদি নষ্ট করে দেবে, এই দাবির কোনও যুক্তি নেই। কোন প্রভাবটা আমি খাটিয়েছি? গত ৬-৭ দিন ধরে আমি ভুগে যাচ্ছি। আর এর থেকেও গুরুতর অপরাধ করে লোকেরা প্রকাশ্যে ঘুরে বেড়াচ্ছে। আমি তো ওদের মতো নই। আমি ২৩ বছর বয়সি একটা ছেলে, যাঁর পূর্ববর্তী কোনও খারাপ রেকর্ড নেই। আমার হয়তো বলিউডে থাকা উচিত ছিল। সেদিন যখন আমি প্রমোদতরীর রেভ পার্টিতে পৌঁছই ওঁরা আমার উপর তল্লাশি চালান। কিন্তু কিছুই খুঁজে পাওয়া যায়নি। এরপরই আমার মোবাইল ঘেঁটে দেখে সমস্ত ডেটা ডাউনলোড করে ফেলেন। এরপরই ফরেন্সিক পরীক্ষার জন্য পাঠানো হয় মোবাইল। প্রথমদিন থেকে আজ অবধি সেরকমভাবে কিচ্ছু খুঁজে পাওয়া যায়নি। আমি সম্ভ্রান্ত পরিবারের ছেলে, কখনও পালাব না।

জামিনের আবেদনের বিরুদ্ধে এনসিবি-র তরফে অ্যাডিশনাল সলিসিটর জেনারেল অনিল সিং তাঁর সওয়ালে বলেন, আমাদের কাছে অনেক তথ্য রয়েছে৷ এই অবস্থায় ওঁদের জামিন দেওয়া হলে তদন্ত ক্ষতিগ্রস্ত হবে৷ আজ সকালে মুম্বইয়ের এসপ্ল্যানেড ম্যাজিস্ট্রেট আদালতে শুনানির আগে নিয়ম মেনে আরিয়ানদের মেডিক্যাল পরীক্ষা করানো হয়৷ জেজে হাসপাতালে পরীক্ষা-নীরিক্ষা করানোর পর আরিয়ান ও আরবাজকে আর্থার রোড সংশোধনাগারে নিয়ে যাওয়া হয়৷ দুই মহিলা অভিযুক্তকে বাইকুল্লা মহিলা সংশোধনাগারে নিয়ে যাওয়া হয়েছে৷

ভাজপা নেতাকে বাঁচাতেই টার্গেট শাহরুখ

শাহরুখ খান এবং বলিউডকে বদনাম করার জন্যেই ভাজপা নেতাদের উপস্থিতিতে এনসিডি আধিকারিকরা শাহরুখপুত্র আরিয়ানকে গ্রেফতার করেছিল বলে আগে তথ্যপ্রমাণ সামনে এনে দাবি করেছিলেন শরদ পাওয়ার এর দল এনসিপি রাজ্য সভাপতি নবাব মালিক। ন্যাশনালিস্ট কংগ্রেস পার্টির নেতা নবাব মালিক আবারও এই ঘটনায় ভাজপার দিকে আঙুল তুলেছেন৷ তাঁর অভিযোগ, মহারাষ্ট্রের এক প্রভাবশালী ভাজপা নেতার জামাইকেও সে দিন ক্রুজে হানা দিয়ে আটক করেছিল এনসিবি৷ তবে কিছুক্ষণের মধ্যেই ভাজপা কেন্দ্রীয় নেতৃত্বের চাপে আটক হওয়া ওই ভাজপা নেতার আত্মীয়কে ছেড়ে দেওয়া হয়৷ পাশাপাশি নবাব মালিক অভিযোগ করেছেন, মহারাষ্ট্রের বদনাম করাই লক্ষ্য এনসিবি-র। রিয়া চক্রবর্তী, দীপিকা পাড়ুকোন থেকে শুরু করে আরিয়ান খান – যেখানেই প্রচার পাওয়ার মতো বিষয় আছে সেখানেই ঝাঁপাচ্ছে এনসিবি। অনেকগুলি মামলা আবার ভুয়ো। কোনও কোনও ঘটনায় মাদকই উদ্ধার হয়নি। এনসিবি নিজেদের দফতরের মাদক নিয়ে এসে সেগুলির ছবি তুলে দাবি করছে মাদক উদ্ধার হয়েছে! এবং সেই ছবি সংবাদমাধ্যমেও প্রকাশ করার জন্য দেওয়া হচ্ছে। সুশান্ত সিংহ রাজপুতের মৃত্যুর পর এনসিবি-র নতুন অধিকর্তাকে আনা হল। গত ৩৫ বছরে এ রকম প্রচার পাওয়ার মতো কোনও কাজ করেনি এনসিবি। গত বছর থেকেই এই প্রচার পাওয়ার খেলা শুরু হয়েছে।

Advertisement

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here