দুর্গাপুজোয় মূর্তি বানিয়ে পুজোয় নিষেধাজ্ঞা, বিজেপি শাসিত অসমের ডিব্রুগড়ে করতে হবে ঘট পূজো

0

Last Updated on September 16, 2020 11:43 PM by Khabar365Din

৩৬৫ দিন: গুয়াহাটি। করোনা সংক্রমনের আশংকায় অসমের ডিব্রুগড়ে দুর্গাপূজা উপলক্ষে মন্ডপ অথবা মূর্তি তৈরি করা যাবে না। শুধুমাত্র বৈদিক আচার অনুষ্ঠানের মধ্যে দিয়েই সম্পন্ন করতে হবে দুর্গাপুজো। এমনই নির্দেশিকা জারি করা হলো অসমের বিজেপি শাসিত রাজ্য সরকারের তরফে। সর্বসম্মতভাবেই সেই সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে বলে জানালেন ডিব্রুগড়ের ডেপুটি পুলিশ কমিশনার গোপাল ঝা। এই প্রসঙ্গে কোন কোন ক্ষেত্রে মূর্তি পূজা করা যাবে সেই ব্যতিক্রম সম্পর্কে ডিব্রুগড়ের ডেপুটি পুলিশ কমিশনার নির্দেশিকা জারি করে জানিয়েছেন, স্থায়ী প্রতিমা নিয়ে যে মন্দিরগুলি পুজো করে, তারা এবার নিয়মকানুন মেনে আচার পালন করতে পারবে। তবে কোভিড-১৯ প্রোটোকল মেনে চলতে হবে। এখানে করোনা সংক্রমনের সংখ্যা বাড়ছে এবং বৈঠকে সিদ্ধান্ত হয়েছে যে এ বছর দুর্গাপুজোর সময় জমায়েত কম করতে হবে।
প্রসঙ্গত চলতি সপ্তাহেই উত্তর-পূর্ব ভারতের আরেক বিজেপি শাসিত রাজ্য ত্রিপুরার মুখ্যমন্ত্রী বিপ্লব দেব দূর্গা পূজা সম্পর্কে নির্দেশিকা জারি করে জানিয়েছেন, দশ ফুটের বেশি উচ্চতার কোন মূর্তি তৈরি করা যাবে না এবং দুর্গাপূজা উপলক্ষে কারো বাড়িতে গিয়ে চাঁদা চাওয়া যাবে না।
ডিব্রুগড় এ মূর্তি প্রতিষ্ঠা করে দুর্গাপুজোয় সরকারি নিষেধাজ্ঞা পাশাপাশি যে সমস্ত অস্থায়ী দুর্গা মন্ডপে পুজো করার অনুমতি দেওয়া হয়েছে সেখানে অথবা সংলগ্ন এলাকায় পূজা উপলক্ষে সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান অথবা মেলার আয়োজন সম্পূর্ণ নিষিদ্ধ বলে জানানো হয়েছে ডিব্রুগড় পুলিশ প্রশাসনের তরফে। অসম সরকার এবং ডিব্রুগড় পুলিশ প্রশাসনের তরফে এই সিদ্ধান্তকে সর্বসম্মত ভাবে গৃহীত সিদ্ধান্ত বলে দাবি করা হলেও এনআরসি এবং সংশোধিত নাগরিকত্ব আইনে অসম থেকে বাঙালি নাগরিকদের নাগরিকত্ব খারিজের যে সিদ্ধান্ত বিজেপি শাসিত কেন্দ্রীয় সরকার এবং অসীম সরকার নিয়েছে তারপরে এটাকে বাঙালি অধ্যুষিত ডিব্রুগড় এর তথা অসমের বাঙালি সম্প্রদায়ের ধর্মীয় বিশ্বাসে আঘাত বলে প্রতিবাদ জানিয়েছে একাধিক বাঙালি সংগঠন।

- Advertisement -
Advertisement

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here