মােদি ঘনিষ্ঠ অক্ষয় কুমারের বিরুদ্ধেও কোমর বেঁধে আরএসএস

3

Last Updated on October 18, 2020 4:50 PM by Khabar365Din

৩৬৫ দিন। বিজেপি শাসিত ভারতে আরসসের মদতে ক্রমশ বাড়ছে সাম্প্রদায়িক অশান্তি। কিছুদিন আগেই ঐক্যের বার্তা দেওয়া বিজ্ঞাপন চাপে তুলে নিতে বাধ্য হয়েছিল গয়না প্রস্তুতকারক সংস্থা তানিষ্ক। বার আরসএসের আক্রমণে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মােদীর ঘনিষ্ঠ অক্ষয় কুমার। অক্ষয় কুমারের নতুন ছবি ‘লক্ষ্মী বম্ব’-র বিরুদ্ধে একইভাবে খঙ্গহস্ত হয়েছে আরসসের সদস্যরা। অভিযােগ, এই ছবিও লাভ জিহাদের প্রচার করেছে এবং হিন্দু ধর্মের অবমাননা করেছে। সুপারহিট তামিল ছবি ‘কাঞ্চনার হিন্দি রিমেক ‘লক্ষ্মী বম্ব’-এর নায়ক, অর্থাৎ অক্ষয় অভিনীত চরিত্রের নাম আসিফ। নায়িকা কিয়ারা আদবানির নাম প্রিয়া। এতে লভ জেহাদের ইঙ্গিত পেয়ে সংঘের ভক্তরা ছবিটির ওপর নিষেধাজ্ঞা চেয়েছে। তার ওপর লক্ষ্মী নামের ব্যবহারে ইচ্ছাকৃতভাবে লক্ষ্মীদেবীর অপমান করা হয়েছে।

- Advertisement -

এমনও অভিযোেগ আরসএস পন্থীদের। ভূতুড়ে কমেডি ঘরানার এই ছবিতে তৃতীয় লিঙ্গের মানুষ লক্ষ্মী, মৃত্যুর পর অক্ষয় অভিনীত চরিত্র আসিফ অভিনীত চরিত্রের ওপর ভর করে। এর জন্য ‘শেম অন ইউ অক্ষয়’ ট্রেন্ড করছে সােশ্যাল মিডিয়ায়। লক্ষ্মী বম্ব’ ছবির প্রযােজক সাবিনা খান কাশ্মীরি। টুইটারে মন্তব্য করা হয়েছে, সাবিনা আসলে কাশ্মীরি বিচ্ছিন্নতাবাদী! ছবিতে লক্ষ্মী লাল শাড়ি, লাল টিপ হাতে ত্রিশূল নিয়ে ঘােরে। দেওয়ালে দেবী লক্ষ্মীর ছবি দেখা যায়। তারপর আসিফের প্রেমিকার নাম প্রিয়া। শুধু এই কারণে ছবি নিষিদ্ধ ঘােষণার দাবি করেছে তারা। প্রযােজক সাবিনা জানিয়েছেন, ছবির প্রয়ােজনেই কাঞ্চনার বদলে লক্ষ্মী বম্ব নামকরণ করা হয়েছে। সিনেমায় লক্ষ্মী একজন রুপান্তরকামী, তার মাধ্যমে আমরা রুপান্তরকামীদের কাহিনী বলতে চেয়েছি।

Advertisement

3 COMMENTS

  1. সারাদিনে এইটুকু একটা নতুন খবর লিখেছেন, সেটুকুর মধ্যেও এত বানান ভুল? দীর্ঘদিন ধরে দেখে আসছি আপনাদের খবরে বানানের কোনো মাবাপ নেই, যা খুশী লেখেন, তার জন্য কোনদিন লজ্জিত হতে দেখিনি বা ভুল স্বীকার করতেও দেখিনি। দুকানকাটার মতো মাঝ রাস্তা দিয়ে চলেন বুক ফুলিয়ে। নেহাৎ বাম ও রাম বিরোধী খবর থাকে এবং রাজ্যের উন্নয়নের সঙ্গী বলেই 365দিন-এর রাজনৈতিক খবরগুলো নিয়মিত পড়ে আসছি এর জন্মলগ্ন থেকে। বিবির মতো কুৎসিত অংশ কোনোকালেই পড়িনা।
    যাই হোক আজকের নতুন খবর বলতে একটাই। তার মধ্যে আরএসএস বানান কখনো আরসস তো কখনো আরসএস, খড়্গহস্ত হয়েছে খঙ্গহস্ত, কখনো লাভ জিহাদ কখনো লভ জিহাদ। মজার ব্যাপার, দীর্ঘদিন ধরে দেখছি প্রতিটা খবরের ছত্রে ছত্রে ভুলগুলো সব যে টাইপিং মিসটেক তা কিন্তু নয়, অনেক ক্ষেত্রে দ্রখা গেছে সংশ্লিষ্ট ব্যক্তি সঠিক বাংলা শব্দটি না জানার জন্যই ভুল ছাপানো হয়েছে। আপনাদের কাগজে কি এত অশিক্ষিত, বাংলা অজ্ঞ লোকজন রয়েছে? সম্পাদক বা আর কেউ কোনো সাংবাদিক বা টাইপিস্টের টাইপ করা খবরের উপর একবার চোখ বোলাননা? এভাবে ছত্রে ছত্রে ভাষা দূষণ করে চলেছে বলেই খবর 365দিন কোনোদিন জাতে উঠতে পারলনা। অথচ এর ব্যতিক্রমী রাজনৈতিক খবর অন্য যেকোনো কাগজের চেয়ে অনেক উঁচুমানের। সেই তাগিদেই কাগজটা 2012র জন্মলগ্ন থেকে আজও পড়ি।

    • সারাদিনে এইটুকু একটা নতুন খবর লিখেছেন, সেটুকুর মধ্যেও এত বানান ভুল? দীর্ঘদিন ধরে দেখে আসছি আপনাদের খবরে বানানের কোনো মাবাপ নেই, যা খুশী লেখেন, তার জন্য কোনদিন লজ্জিত হতে দেখিনি বা ভুল স্বীকার করতেও দেখিনি। দুকানকাটার মতো মাঝ রাস্তা দিয়ে চলেন বুক ফুলিয়ে। নেহাৎ বাম ও রাম বিরোধী খবর থাকে এবং রাজ্যের উন্নয়নের সঙ্গী বলেই 365দিন-এর রাজনৈতিক খবরগুলো নিয়মিত পড়ে আসছি এর জন্মলগ্ন থেকে। বিবির মতো কুৎসিত অংশ কোনোকালেই পড়িনা।
      যাই হোক আজকের নতুন খবর বলতে একটাই। তার মধ্যে আরএসএস বানান কখনো আরসস তো কখনো আরসএস, খড়্গহস্ত হয়েছে খঙ্গহস্ত, কখনো লাভ জিহাদ কখনো লভ জিহাদ। মজার ব্যাপার, দীর্ঘদিন ধরে দেখছি প্রতিটা খবরের ছত্রে ছত্রে ভুলগুলো সব যে টাইপিং মিসটেক তা কিন্তু নয়, অনেক ক্ষেত্রে দেখা গেছে সংশ্লিষ্ট ব্যক্তি সঠিক বাংলা শব্দটি না জানার জন্যই ভুল ছাপানো হয়েছে। আপনাদের কাগজে কি এত অশিক্ষিত, বাংলা অজ্ঞ লোকজন রয়েছেন? সম্পাদক বা আর কেউ কোনো সাংবাদিক বা টাইপিস্টের টাইপ করা খবরের উপর একবার চোখ বোলাননা? এভাবে ছত্রে ছত্রে ভাষা দূষণ করে চলেছে বলেই খবর 365দিন কোনোদিন জাতে উঠতে পারলনা। অথচ এর ব্যতিক্রমী রাজনৈতিক খবর অন্য যেকোনো কাগজের চেয়ে অনেক উঁচুমানের। সেই তাগিদেই কাগজটা 2012র জন্মলগ্ন থেকে আজও পড়ি।

      • ** অনেক ক্ষেত্রে দেখা গেছে….”
        কম্পিউটার অটোফরম্যাট জনিত ভুলের জন্য দুঃখিত।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here